1. info@www.dainikdeshbarta.com : bissho sangbad Online : bissho sangbad Online
  2. info@www.dainikdeshbarta.com : Dainik Desh Barta :
শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ১২:৩৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
বাংলাদেশ শেফ ফেডারেশনের সাথে মতবিনিময় বাংলাদেশের শেফগণ দেশে-বিদেশে সুনামের সাথে অবদান রাখছেঃ রাষ্ট্রপতি নবাগত ইউএনওর সাথে বোয়ালখালী প্রেস ক্লাবের সৌজন্য সাক্ষাৎ টেকনাফের কলেজছাত্র মুরাদ হত্যা মামলার আসামি রহিম কারাগারে কক্সবাজার সমুদ্রে গোসল করতে নেমে ডুবে গেলেন ৪ পর্যটক, নিখোঁজ ১  পটিয়া পৌরসভা সড়কের নবনির্মিত ডিভাইডারে বৃক্ষ রোপন উদ্ভোধন করলেন মেয়র আইয়ুব বাবুল। আন্তর্জাতিক মানবাধিকার কমিশন চট্টগ্রাম উত্তর জেলার সম্মেলন প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত পলাশবাড়ীতে অটো গ্যারেজের নৈশ প্রহরীকে হত্যা করে ৫টি আটো চুরি বোয়ালখালীতে নবনিযুক্ত স্বাস্থ্য সহকারীদের বরণ উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত চন্দনাইশে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গোল্ডকাপ ফুটবল বালক (অনূর্ধ্ব১৭) টুর্নামেন্টের উদ্বোধন সার্ক মানবাধিকার ফাউন্ডেশন চট্টগ্রাম বিভাগের মা সম্মেলনে বক্তারা : শিশুদের স্মার্ট ফোন ব্যবহার আমাদেরকে মেধা শূন্য জাতিতে পরিণত করবে

পটিয়ায় যৌতুকের বলি এই মেয়েটি বউ হবার আগেই শেষ হয়ে গেল

  • প্রকাশিত: শুক্রবার, ২৮ জুন, ২০২৪
  • ১৮০ বার পড়া হয়েছে

বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) দুপুরে হবু স্বামীর উদ্দেশ্যে এভাবেই চিরকুট লিখে আত্মহত্যা করেছেন চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলায় হাইদগাঁও এলাকার হীরা তালুকদার বাড়ির বাচা মিয়ার মেয়ে রীমা আক্তার (২০)। শুক্রবার মিজানুর রহমান নামে এক যুবকের সঙ্গে ওই তরুণীর বিয়ের কথা ছিল।

ওই চিরকুটে রীমা আরও লেখেন, আমি বাঁচতে পারতাম যদি আমি বেশি মানসম্মানওয়ালা পরিবারের জন্মগ্রহণ না করতাম। সবাই আমাকে ক্ষমা করে দিও। আর আমার পোস্টমর্টেম করিয়ে আমার সব যন্ত্রণা ধুয়ে মুছে আমাকে কবরে পাঠিও। আর আমার পরিবারকে বলছি, মোরশেদকে তোমরা ছাড়বা না। ওকে ওর প্রাপ্য শাস্তি তোমরা দেবা।’

জানা গেছে, নারায়ণগঞ্জে আল-আরাফাহ ইসলামী ব্যাংকে কর্মরত মিজানুর রহমান নামে এক যুবকের সঙ্গে রীমার দীর্ঘ দিনের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। সম্প্রতি পারিবারিকভাবে তাদের বিয়ে ঠিক হয়। বৃহস্পতিবার তাদের মেহেদী অনুষ্ঠান এবং আগামীকাল তাদের বিয়ে হওয়ার কথা ছিল।

এ বিষয়ে রীমার ভাই আজগর হোসেন বলেন, ‘আমার বোন পটিয়া সরকারি কলেজে অনার্সের ছাত্রী ছিল। ছেলের পক্ষের আগ্রহে আমরা বিয়েতে রাজি হয়েছি। আমার বোনের কাছে যৌতুক হিসেবে ফুলসেট ফার্নিচার, টিভি, ফ্রিজ এবং বিয়ের খরচ হিসেবে নগদ টাকা দাবি করা হয়। উভয়ের প্রেমের সম্পর্ক থাকা সত্ত্বেও যৌতুক দাবি করায় আমার বোন অপমানিত হয়ে রাগে আত্মহত্যা করে।’

তিনি আরও বলেন, ‘ছেলে যে এতটা যৌতুক লোভী হবে আমরা জানতাম না। প্রাণ দিয়ে আমার বোন তার মুখোশ উম্মোচন করে দিয়েছে। আমরা এতদিন বুঝতে পারেনি।’

রীমা আক্তারের চাচা নাছির উদ্দিন বলেন, ‘দুদিন আগেও মিজানুর রহমানের পরিবারকে দুই লাখ টাকা পরিশোধ করা হয়েছে। এটি বরযাত্রীর খাবারের পরিবর্তে বলে নিয়েছে তাদের পরিবার। আমার ভাতিজি আত্মহত্যার আগে চিরকুটে উল্লেখ করেছেন তাকে আজকেও নাকি ভিডিও কল দিয়ে যৌতুকের টাকা দাবি করেছে। আমি এ ঘটনার বিচার চাই।’

পটিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবদুর রহিম সরকার বলেন, ‘এ বিষয়ে ভুক্তভোগীর পরিবারের কেউ অভিযোগ করেননি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট