1. info@www.dainikdeshbarta.com : bissho sangbad Online : bissho sangbad Online
  2. info@www.dainikdeshbarta.com : Dainik Desh Barta :
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ১২:৩৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
বাংলাদেশ শেফ ফেডারেশনের সাথে মতবিনিময় বাংলাদেশের শেফগণ দেশে-বিদেশে সুনামের সাথে অবদান রাখছেঃ রাষ্ট্রপতি নবাগত ইউএনওর সাথে বোয়ালখালী প্রেস ক্লাবের সৌজন্য সাক্ষাৎ টেকনাফের কলেজছাত্র মুরাদ হত্যা মামলার আসামি রহিম কারাগারে কক্সবাজার সমুদ্রে গোসল করতে নেমে ডুবে গেলেন ৪ পর্যটক, নিখোঁজ ১  পটিয়া পৌরসভা সড়কের নবনির্মিত ডিভাইডারে বৃক্ষ রোপন উদ্ভোধন করলেন মেয়র আইয়ুব বাবুল। আন্তর্জাতিক মানবাধিকার কমিশন চট্টগ্রাম উত্তর জেলার সম্মেলন প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত পলাশবাড়ীতে অটো গ্যারেজের নৈশ প্রহরীকে হত্যা করে ৫টি আটো চুরি বোয়ালখালীতে নবনিযুক্ত স্বাস্থ্য সহকারীদের বরণ উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত চন্দনাইশে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গোল্ডকাপ ফুটবল বালক (অনূর্ধ্ব১৭) টুর্নামেন্টের উদ্বোধন সার্ক মানবাধিকার ফাউন্ডেশন চট্টগ্রাম বিভাগের মা সম্মেলনে বক্তারা : শিশুদের স্মার্ট ফোন ব্যবহার আমাদেরকে মেধা শূন্য জাতিতে পরিণত করবে

দূমকিতে আশা এনজিও সদস্যের চেক ছিড়ে ফেলার অভিযোগ।

  • প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ৬ জুন, ২০২৩
  • ৪৭২ বার পড়া হয়েছে

এস আল-আমিন খাঁন পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধি।

আশা এনজিও দুমকি শাখায় সদস্যের চেক ছিড়ে ফেলার অভিযোগ উঠেছে জুবায়ের নামের এক ফিল্ড অফিসারের বিরুদ্ধে। অভিযোগকারী উপজেলার পীরতলা বাজার এলাকার বাসিন্দা মোঃ আবু হানিফ।

মঙ্গলবার ০৬’জুন দুপুরে অভিযোগটি পাওয়া গেছে, গত ৫’জুন দুপুরে ঘটনাটি ঘটে।

অভিযোগে বলা হয়, ভুক্তভোগী সদস্য আবু হানিফ ২০২২ সালে আশা এনজিও থেকে ৬০ হাজার টাকা লোন নেন। ঘটনার দিন গতকাল ৫’জুন দুপুরে এনজিওর নিয়ম অনুযায়ী ৪৫ কিস্তির পরে ৫৫৮ টাকা এনজিও পাওনা তার সঞ্চয় ছিলে ১০০ টাকা। লোন গ্রহণের সময় সদস্যর কাছ থেকে দুটি সাদা চেক জমা রাখেন। কিন্তুু লোন পরিশোধ করার পর চেক ফেরত না দিয়ে ফিল্ড অফিসার জোবায়ের তার সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরন করেন এবং তার চেক দুটি ছিড়ে ফেলেন।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত এনজিও ফিল্ড অফিসার অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, সদস্য হানিফ এর সঙ্গে তার কখনও কোন কথা হয়নি। কেন এমন অভিযোগ করেছে তার জানা নেই।

এছাড়াও ফিল্ড কর্মী কুলসুম আক্তার বলেন, গতকাল সদস্য হানিফ অফিসে এসে সমস্ত লেনদেন হিসাব নিকাশ করে তার চেক দুটি ফেরত নিয়ে যায়। পরবর্তীতে কিভাবে তার চেক ছিরলো তাদের জানা নেই।

এব্যাপারে সিনিয়র ব্রাঞ্চ ম্যানেজার রিয়াজুল ইসলাম বলেন, গ্রাহকের সঙ্গে কোন রকম ঝামেলা হয়নি। অফিসিয়াল নিয়ম অনুযায়ী তার লোন পরিশোধ করার পরে চেক নিয়ে চলেগেছে। তার সঙ্গে কোন রকম খারাপ আচরণ করা হয়নি।এমন গটনা হলে আমি জানতাম। এধরণের ঘটনার সত্যতা নেই গ্রাহক হানিফ নিজে সাক্ষর করে চেক দুটি নিয়ে গেছেন রেজিস্ট্রার খাতায় তার সাক্ষর রয়েছে এসব অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায়: ইয়োলো হোস্ট